রাজশাহীতে শোবার ঘর থেকে বেরিয়ে এলো ২৭টি গোখরা সাপ

ছবির কপিরাইট ZIAUL GANI SALIM
Image caption এ সাপগুলো পিটিয়ে মেরেছেন বাড়ির মালিকরা

মঙ্গলবার রাত ১১ টায় শোবার ঘরে বসে টেলিভিশন দেখছিলেন রাজশাহী শহরের বুধপাড়ার বাসিন্দা মাজদার আলী।

হঠাৎ তিনি লক্ষ্য করেন খাটের নিচ থেকে একটি সাপ বেরিয়ে এসেছে। মুহূর্তের মধ্যেই সাপটি ড্রেসিং টেবিলের পেছনে চলে যায়।

তখন ড্রেসিং টেবিলের পেছনে টর্চ লাইট দিয়ে তিনি দেখেন সেখানে তিনটি সাপ রয়েছে।

মি: আলী বলেন, " তিনটা সাপ দেখে আমি থতমত খেয়ে যাই। একসাথে এতগুলো সাপ! তারপর আমি সব ভাইকে ডাকি।" কিন্তু মি: আলীর জন্য আরো বিস্ময় অপেক্ষা করছিল।

ছবির কপিরাইট ZIAUL GANI SALIM
Image caption সাপ দেখেতে বাড়ির উঠানে উৎসুক মানুষ

এমন অবস্থায় সাপ তিনটি ড্রেসিং টেবিলের পাশে একটি গর্তে ঢুকে যায়।

তারপর পাঁচ ভাই মিলে গর্ত খুঁড়ে শাবল এবং লাঠি দিয়ে সাপগুলো বের করার চেষ্টা করেন।

এক পর্যায়ে কক্ষের আসবাবপত্র সরিয়ে আরো গর্ত খোঁড়া শুরু করেন তারা।

" আমরা ঘরের ভেতরে সবগুলো গর্ত খুঁড়তে থাকি। সাপ বের হয়ে আসে আর মারি। এভাবে ২৭টা সাপ বের হয়ে আসে", বলছিলেন মি: আলী। তিনি জানালেন সবগুলো সাপই বিষাক্ত গোখরা সাপ।

রাত ১১টা থেকে ভোর চারটা পর্যন্ত সাপ মারার কাজ চালিয়ে যান তারা। মি: আলী জানালেন সাপ ধরার জন্য তারা সাপুড়ে না পাওয়ায় নিজেরাই সাপ মারার কাজটা করেন।

মাজদার আলী জানালেন ঘরের একটি কক্ষে ধান রাখা হয়। ধান কাটার জন্য সেখানে ইঁদুর গর্ত তৈরি করে। সেজন্য সেসব গর্তে সাপ আসতে পারে বলে তিনি ধারণা করছেন।

আরো পড়তে পারেন:

'ফরহাদ মজহার এমন কেউ নন তাঁকে সরকার ভয় পাবে'

মৃত্যুফাঁদ পেরিয়ে ইতালিতে যাওয়া এক বাংলাদেশীর গল্প

বিয়ে রুখতে নিজের হাত কাটলেন নবম শ্রেণীর বিথী

‘ইসলামিক স্টেট’ এর প্রধান আল-বাগদাদী কোথায়?

সম্পর্কিত বিষয়