দিনাজপুরে গুলিতে নিহত তিনজন যুবলীগের কর্মী: পুলিশ

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট ছবির কপিরাইট গুগল ম্যাপ
Image caption দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলায় গুলিবিদ্ধ যে তিনজন তরুণের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে, পুলিশ তাদের পরিচয় সম্পর্কে জানতে পেরেছে।

নিহত তিনজনই নাটোরের যুবলীগ কর্মী বলে জানা যাচ্ছে এবং আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে এদের তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল বলে পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ জানানো হয়েছিল।

ঘোড়াঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ ইসরাইল হোসেন জানিয়েছেন, সকালে বুলাকিপুর ইউনিয়নের ভেলাই গ্রামে তিনজনের লাশ পড়ে থাকার খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে।

মি. হোসেন জানান, সব কজনের মাথায় গুলি করা হয়েছে। শরীরের অন্য কোথাও আঘাতের চিহ্ন নেই।

তিনি জানান, নিহতদের সঙ্গে চারটি মোবাইল ফোন ছিল। এর মধ্যে একটি চালু করার পর নিহত একজনের পরিবারের সঙ্গে কথা বলতে পারে পুলিশ।

এরপরই তাদের পরিচয় সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা পাওয়া যায় বলে জানান ঘোড়াঘাট পুলিশের এই কর্মকর্তা।

তবে, নিহতদের আত্মীয়রা এসে তাদের শনাক্ত করলে পরিচয় সম্পর্কে পুরোপুরি নিশ্চিত হওয়া যাবে বলে তিনি জানান।

মি. হোসেন বলছেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, তাদের অন্য কোথাও হত্যা করে উদ্ধার করার জায়গায় এনে লাশ ফেলা হয়েছে।

এদিকে, নাটোর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিজানুর রহমান জানিয়েছেন, প্রাথমিক খবরা-খবর করে তারা জানতে পেরেছেন যে ঐ তিনজন নাটোর জেলা যুবলীগ কর্মী।

এই তিনজনকে শনিবার সন্ধ্যায় নাটোরের তকিয়া বাজার থেকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল বলে পরিবারগুলো অভিযোগ করছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

এ অভিযোগ জানিয়ে নিহতদের একজনের মা রোববার নাটোর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছিলেন বলেও জানিয়েছেন মি. রহমান।

এদিকে, ঘোড়াঘাটের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মি. হোসেন জানিয়েছেন, নিহতদের লাশ দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।