ডোনাল্ড ট্রাম্পই হচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট

ডোনাল্ড ট্রাম্প ছবির কপিরাইট গেটি ইমেজেস
Image caption ডোনাল্ড ট্রাম্প

আর সংশয় রইলো না। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হবার শেষ বৈতরণীও পার হয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

ইলেকটোরাল কলেজ ভোটে জয়ী হয়ে নিশ্চিতভাবেই দেশটির ৪৫ তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন ট্রাম্প।

জানুয়ারির ছয় তারিখে কংগ্রেসের বিশেষ যৌথ অধিবেশনে এই ভোটের ফলাফল আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা হবে।

জয়ের পর প্রতিক্রিয়ায় মি. ট্রাম্প দেশকে ঐক্যবদ্ধ করতে কঠোর পরিশ্রম করবেন এবং তিনি যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকের প্রেসিডেন্ট হবেন বলে আশ্বস্ত করেন।

ছবির কপিরাইট টুইটার
Image caption নির্বাচিত হবার পর টুইটারে সমর্থকদের ধন্যবাদ জানান মি. ট্রাম্প

নির্বাচনের ছয় সপ্তাহ পর ইলেকটোরাল কলেজ ভোটেও ট্রাম্পের রিপাবলিকান দল জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ২৭০ ভোট নিশ্চিত করেছে।

তবে, এই বিলিয়নিয়ারকে সমর্থন না দেয়ার আহ্বান জানিয়ে ইলেকটরদের বারবার ইমেইল পাঠানো এবং ফোন করা হয়েছিল।

দুইজন ইলেকটর মি. ট্রাম্পের বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন।

যদিও এই ভোটাভুটির ব্যপারটি একটি আনুষ্ঠানিকতা মাত্র, কিন্তু যেহেতু রুশ হ্যাকাররা নির্বাচন বানচালের চেষ্টা করেছিল বলে অভিযোগ উঠেছে, সেক্ষেত্রে ইলেকটররা হিলারি ক্লিনটনকে নির্বাচিত করতে পারেন, সে গুজবও শোনা যাচ্ছিল।

ছবির কপিরাইট ইপিএ
Image caption বিক্ষোভকারীরা ইলেকটরদের প্রতি ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ভোট না দেয়ার আহ্বান জানান

এদিকে, নিউইয়র্ক টাইমসের এক খবরে জানা যাচ্ছে, ডেমোক্রেট চারজন ইলেকটর হিলারি ক্লিনটনের পরিবর্তে অন্য কাউকে ভোট দিয়েছেন।

মি. ট্রাম্পকে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রেসিডেন্ট ঘোষণা করা হবে কি না, তা নির্ধারণের জন্য সোমবার ৫০টি অঙ্গরাজ্যে এবং ডিসট্রিক্ট অব কলাম্বিয়ায় ৫৩৮ জন ইলেকটর বা নির্বাচক বসেন।

ইলেকটররা ট্রাম্পকেই আনুষ্ঠানিকভাবে প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচন করেন। এদিকে, এই ভোটের আগে মি. ট্রাম্পকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত না করার দাবীতে দেশটির বিভিন্ন রাজ্যে মিছিল করেছে হাজারো মানুষ।