বনানীতে দুই ছাত্রীকে 'ধর্ষণের আলামত' পাওয়া যায়নি

প্রতীকী ছবি ছবির কপিরাইট LEISA TYLER
Image caption গত ২৮শে মার্চ বনানীর একটি হোটেলে জন্মদিনের পার্টিতে ডেকে দুই বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ ওঠে।

বাংলাদেশে বহুল আলোচিত বনানী ধর্ষণ মামলার ঘটনায় দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর মেডিকেল পরীক্ষায় ধর্ষণের কোনো আলামত পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে ফরেনসিক বিভাগ।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা: সোহেল মাহমুদ বিবিসি বাংলাকে জানিয়েছেন , দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীকে ধর্ষণের কোনো আলামত পাননি তারা।

তিনি বলেন, পুলিশ তাদের কাছে দুটো তথ্য জানতে চেয়েছিল। ছাত্রীদের বয়স কত আর তাদের শরীরে ধর্ষণের আলামত আছে কিনা।

ডা: সোহেল জানান, সবগুলো রিপোর্ট পাবার পর মেডিকেল বোর্ডের করা চূড়ান্ত রিপোর্ট পুলিশের কাছে আজ হস্তান্তর করা হয়।

"তাদের বয়স ২২ থেকে ২৩ বছরের মধ্যে। আর মেডিকেল পরীক্ষায় তাদের শরীরে ধর্ষণের কোনো আলামত পাইনি আমরা। ধর্ষণের আলামত না পাওয়ার পিছনে অনেক কারণ থাকতে পারে। দেরিতে নমুনা নেয়াও একটা কারণ হতে পারে" - বলেন সোহেল মাহমুদ।

গত ২৮শে মার্চ বনানীর একটি হোটেলে জন্মদিনের পার্টিতে ডেকে দুই বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ ওঠে।

এই অভিযোগে ঐ দুই শিক্ষার্থী ৬ই মে বনানী থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলার মোট পাঁচ জন আসামীর সব কজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এদের মধ্যে চারজনই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে ইতোমধ্যে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন।

আরো পড়ুন:

বনানী ধর্ষণ: আসামীদের 'খুঁজে পাচ্ছে না' পুলিশ

বনানী ধর্ষণ: আদালতে দুই ছাত্রীর জবানবন্দী

বনানী ধর্ষণ: নাঈম আশরাফ সাত দিনের রিমাণ্ডে

বনানী ধর্ষণ মামলার আসামী নাইম আশরাফ আটক

সম্পর্কিত বিষয়