আফগান কমান্ডোর গুলিতে তিনজন আমেরিকান সেনা নিহত

  • ১১ জুন ২০১৭
হেলমান্দ এলাকায় পুনরুজ্জীবিত তালিবান বিদ্রোহীদের মোকাবেলা করতে হচ্ছে আফগান সৈন্যদের। ছবির কপিরাইট EPA
Image caption হেলমান্দ এলাকায় পুনরুজ্জীবিত তালিবান বিদ্রোহীদের মোকাবেলা করতে হচ্ছে আফগান সৈন্যদের।

মার্কিন কর্মকর্তারা বলছেন, আফগান একজন কমান্ডোর গুলিতে নিহত হয়েছেন তিনজন মার্কিন সেনা। পূর্বাঞ্চলীয় আচিন জেলায় একটি যৌথ অভিযান চলার সময় এ ঘটনায় নিহতরা আমেরিকার স্পেশাল ফোর্সের সদস্য ছিলেন।

নানঘর প্রদেশের একজন সরকারি মুখপাত্র জানিয়েছেন, অভিযানের সময় আফগান ওই কমান্ডো আচমকা মার্কিন সহকর্মীদের দিকে গুলিবর্ষণ শুর করে। পাল্টা গুলিতে সে নিজেও নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আরেকজন মার্কিন সৈন্য আহত হয়েছেন।

তালিবান বিদ্রোহীদের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে তারা এই হামলা চালিয়েছে। তাদের একজন মুখপাত্র তেমনটাই দাবি করেছেন ।

ইসলামিক স্টেট বাহিনীর সদস্যদেরও ওই এলাকাটিতে তৎপরতা রয়েছে।

আরও পড়ুন: সেমিফাইনালে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ভারত নাকি সাউথ আফ্রিকা?

এর আগে দক্ষিণাঞ্চলীয় হেলমান্দ এলাকায় আরেকটি ঘটনায় অন্তত দুজন আফগান পুলিশ সদস্য আমেরিকান সৈন্যদের হাতে নিহত হয় তথাকথিত 'ফ্রেন্ডলি ফায়ারে'। বলা হয়, যৌথ অভিযান চলাকালে মার্কিন বিমান থেকে গুলিবর্ষণে তাদের মৃত্যু হয়।

Image caption সাম্প্রতিক সময়ে বেশ কয়েকটি সহিংস হামলার ঘটনা ঘটে যার মধ্যে কাবুলে ভয়াবহ এক হামলায় দেড়শোর বেশি মানুষ নিহত হয়।

গত মে মাসে মার্কিন মেরিন সেনারা পুনরায় আসার পর হেলমান্দে এটাই প্রথম কোনও 'ফ্রেন্ডলি ফায়ার' বা ভুলবশত নিজেদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনার কথা বলা হচ্ছে।

দেশটিতে মার্কিন যুদ্ধ বিমান থেকে হামলার পরিমাণ গত কয়েকমাসে উল্লেখযোগ্যভাবে বেড়েছে।

এদিকে একটি বিবৃতিতে ওই ঘটনায় মার্কিন সেনাদের পক্ষ থেকে দু:খ প্রকাশ করা হয়েছে এবং একটি তদন্ত প্রক্রিয়া শুরু করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।

তিনবছর আগে আমেরিকান সৈন্যদের প্রত্যাহার করা হলেও, আবারও শত শত সৈন্য পাঠানো হয়েছে নেটোর উদ্যোগে আফগান সৈন্যদের প্রশিক্ষিত করা উদ্দেশ্যে। সন্ত্রাস প্রতিরোধের জন্য আমেরিকার বিশেষ বাহিনীর সদস্যরা রয়েছেন এই দলে।