সাইকেল চুরির কারণে বন্ধ হয়ে গেল ব্যবসা

সাইকেল ছবির কপিরাইট Reuters

চীনে একটি বাইক-শেয়ারিং কোম্পানি চালু হবার পাঁচ মাসের মধ্যেই বন্ধ হয়ে গেছে। কারণ এই পাঁচ মাসে কোম্পানিটির ৯০ শতাংশ সাইকেল চুরি হয়ে গেছে।

চংকিং ভিত্তিক 'উকুং বাইকস' নামের প্রতিষ্ঠানটি বলছে তাদের ১২০০ সাইকেল হয় চুরি হয়ে গেছে নয়তো হারিয়ে গেছে।

প্রতিষ্ঠানটি তাদের সাইকেলগুলোতে কোনো জিপিএস সিস্টেম বা ট্রেকিং সিস্টেম চালু করেনি। আর যে সময়ে তারা বুঝতে পারলো এই প্রযুক্তি সাইকেলে যুক্ত করা প্রয়োজন ততক্ষণে প্রতিষ্ঠানে লালবাতি জ্বলে গেছে।

চীনে যে বাইক-শেয়ারিং শিল্পের যেভাবে প্রসার ঘটছে তার মধ্যে এই প্রথম কোনো কোম্পানি দেউলিয়া হলো।

'উবার ফর বাইকস' নামে শুরু হয়েছিল এই যাত্রা। চীনের প্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিষ্ঠানগুলো সাইকেল ভাড়ার এই ব্যবসা শুরু করে। লক্ষ্য ছিল সরু রাস্তায় ভালোভাবে চলার সহজ সমাধান।

টেনসেন্ট ভিত্তিককোম্পানি মোবাইক এবং ওভো - আলিবাবা ও শাওমি'র সহায়তায় চলা প্রতিষ্ঠানগুলো বাজারে ভালো চলছে।

কিন্তু সেই তুলনায় উকুয় ছিল ছোট মাপের প্রতিষ্ঠান। শহরের শিক্ষার্থীদের সেবা দেয়ার লক্ষ্যে মূলত তারা সার্ভিসটি চালু করে।

প্রতিষ্ঠাতা লেই হুয়ি স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে বলেছেন জিপিএস না থাকার কারণে প্রতিষ্ঠানটিকে এরকম লোকসানের মুখে পড়তে হলো।

আ'উবার ফর বাইকস' নামে শুরু হয়েছিল এই যাত্রা। চীনের প্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিষ্ঠানগুলো সাইকেল ভাড়ার এই ব্যবসা শুরু করে। লক্ষ্য ছিল সরু রাস্তায় ভালোভাবে চলার সহজ সমাধান।

টেনসেন্ট ভিত্তিককোম্পানি মোবাইক এবং ওভো - আলিবাবা ও শাওমি'র সহায়তায় চলা প্রতিষ্ঠানগুলো বাজারে ভালো চলছে।

কিন্তু সেই তুলনায় উকুয় ছিল ছোট মাপের প্রতিষ্ঠান। শহরের শিক্ষার্থীদের সেবা দেয়ার লক্ষ্যে মূলত তারা সার্ভিসটি চালু করে।

প্রতিষ্ঠাতা লেই হুয়ি স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে বলেছেন জিপিএস না থাকার কারণে প্রতিষ্ঠানটিকে এরকম লোকসানের মুখে পড়তে হলো।

আরো পড়ুন:

আলোচিত অভিনেত্রী হ্যাপি যেভাবে 'আমাতুল্লাহ' হলেন

আয়কর দিলে কি মুসলিমদের যাকাত দিতে হয়?

সৌদি আরবের ভবিষ্যত বাদশাহ সম্পর্কে যা জানা যাচ্ছে

সম্পর্কিত বিষয়