ট্রাম্প-পুতিনের প্রথম সাক্ষাৎ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় রঙ্গ

ছবির কপিরাইট filmystic/@thejetseter/Twitter
Image caption পুতিনের সুতোর টানে ট্রাম্পের পুতুল নাচ

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আর রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের মধ্যে এই প্রথম মুখোমুখি সাক্ষাৎ হয়েছে হামবুর্গে জি-টুয়েন্টি শীর্ষ সম্মেলনে।

ক্রেমলিনের একজন মুখপাত্র দিমিত্রি পেস্কভ জানিয়েছেন, দুজনের মধ্যে যখন দেখা হয় তখন তাঁরা করমর্দন করেন এবং শীঘ্রই একটি বৈঠকে মিলিত হতে রাজী হয়েছেন।

আজই আরও পরের দিকে এই বৈঠক হওয়ার কথা।

এই দুজনের প্রথম সাক্ষাৎটি কেমন হবে, তা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় গত কদিন ধরেই নানা জল্পনা-কল্পনা আর রঙ্গ চলছিল।

অনেকে টুইটারে এই বৈঠক নিয়ে নানা রকম কৌতুক আর দুজনের ফটোশপ করা ছবি পোষ্ট করেছেন।

একটি ছবিতে দেখা যাচ্ছে পুতিনের কোলে চড়েছেন ট্রাম্প, আর এক হাতে টি-পি (ট্রাম্প-পুতিন) লেখা একটি পতাকা, অন্যহাতে এক গোছা ফুল ধরে রেখেছেন।

ছবির কপিরাইট STARECAT
Image caption পুতিনের কোলে বালক ট্রাম্প: বৈঠক নিয়ে টুইটারে রঙ্গ

আরেকটিতে দেখা যাচ্ছে পুতিনের সুতোর টানে পুতুল নাচ নাচছেন ট্রাম্প।

উল্লেখ্য যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারাভিযানের সময় থেকেই ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং প্রেসিডেন্ট পুতিনের মধ্যে গোপন সম্পর্ক বা সমঝোতা নিয়ে নানা জল্পনা চলছিল।

ভ্লাদিমির পুতিন অতীতে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বেশ প্রশংসা করেন। গত জুনে তিনি বলেছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প খুব 'সোজাসাপ্টা এবং খোলা মনের' মানুষ।

এর আগে ২০১৫ সালের ডিসেম্বরে তিনি ট্রাম্পকে একজন বর্ণাঢ্য এবং মেধাবী লোক বলে মন্তব্য করেন। তিনি তখন আরও বলেছিলেন, মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পই সত্যিকারের নেতা, কিন্তু তিনি কতটা যোগ্য তার বিচারের ভার মার্কিন ভোটারদের।

অন্যদিকে ডোনাল্ড ট্রাম্পও বিভিন্ন সময়ে প্রেসিডেন্ট পুতিনের ব্যাপারে বেশ ইতিবাচক মন্তব্য করেন। তিনিও এমনও বলেছিলেন, পুতিনের সঙ্গে তাঁর বেশ চমৎকার একটা সম্পর্ক হবে বলে তিনি আশা করেন।

উল্লেখ্য যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফল প্রাভাবিত করতে রাশিয়া হস্তক্ষেপ করেছে বলে যে অভিযোগ উঠেছে, সেই অভিযোগে ডোনাল্ড ট্রাম্পের ঘনিষ্ঠ বেশ কয়েকজনের বিরুদ্ধে তদন্ত চলছে।

এই অভিযোগ নিয়ে গত কয়েক মাস ধরেই যুক্তরাষ্ট্রে ব্যাপক বিতর্ক চলছে।

কাজেই আজকের বৈঠকে তারা কি নিয়ে কথা বলেন, সেটা জানার জন্য উন্মুখ অনেকেই।