উসাইন বোল্টকে কীভাবে মনে রাখবে বিশ্ব?

উসাইন বোল্ট ছবির কপিরাইট গেটি ইমেজেস
Image caption উসাইন বোল্ট

ক্যারিয়ারের শেষ ১০০ মিটার রেসে জিততে পারলেন না উসাইন বোল্ট। সর্বকালের সেরা খেতাব পাওয়া এই জ্যামাইকান দৌড়বিদকে হারিয়ে বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশিপের ১০০ মিটারের স্বর্ণ জয় করে নিয়েছেন দীর্ঘ ক্যারিয়ারে বারবার বিতর্কের মুখে পড়া মার্কিন দৌড়বিদ জাস্টিন গ্যাটলিন।

শেষ রেসে তৃতীয় অবস্থানে থেকে ব্রোঞ্জ জিতেছেন বোল্ট।

কিন্তু তার যে কিংবদন্তী পরিচয়, এই পরাজয়ে তাতে কি কোন কমতি হবে?

বিবিসির সাবেক ক্রীড়া সম্পাদক মিহির বোস বলছেন, ইতিহাস যখন লেখা হবে, তখন দেখা যাবে বোল্টের তুলনা করা হয়েছে মোহাম্মদ আলীর সঙ্গে।

বক্সিং রিং এ মোহাম্মদ আলী শেষ পাঁচটি ম্যাচ জিততে পারেননি।

কিন্তু তাতে তার অর্জন কমে যায়নি।

ছবির কপিরাইট গেটি ইমেজেস
Image caption দৌড় শেষে বিজয়ী মার্কিন দৌড়বিদ জাস্টিন গ্যাটলিনকে অভিনন্দন জানান বোল্ট

বরং মানুষ মনে রাখবে কতদিন কত বছর ধরে উসাইন বোল্ট অজেয় ছিলেন।

অ্যাথলেটিক্সে যখন অনেক বিতর্ক, বিভক্তি এবং অনেক গণ্ডগোল, তখন মানুষ জানত যাই হোক না বোল্ট যদি মাঠে থাকে তাহলে অ্যাথলেটিক্স ঠিক আছে।

আরো পড়ুন:হিটলারি কায়দায় স্যালুট দিয়ে গ্রেপ্তার চীনা পর্যটক

মিহির বোস বলছেন, সর্বকালের সেরা অ্যাথলেট হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়া উসাইন বোল্টের আরেকটি বড় অর্জন হলো পুরো পৃথিবীর মানুষের আস্থা অর্জন করা।

দর্শকেরা জানত এবং বিশ্বাস করত, এই অ্যাথলেট খেলছে, জিতছে ড্রাগ নিয়ে না, সে জিতছে দুর্দান্ত খেলে।

খেলা এবং নিজস্ব স্টাইল মিলে উসাইন বোল্টের বিদায়ে অ্যাথলেটিক্স গ্ল্যামার হারাবে বলে মনে করেন মি. বোস।