আইসিটি রায় ফাঁস তদন্তে অগ্রগতি হয়েছে: পুলিশ

  • ৬ অক্টোবর ২০১৩
আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত ভবন
Image caption আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত ভবন

বাংলাদেশে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল থেকে বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মামলার রায়ের অংশবিশেষ অনলাইনে ফাঁস হয়ে যাবার ঘটনার যে তদন্ত চলছে সেখানে গুরুত্বপূর্ণ অগ্রগতি হয়েছে বলে দাবি করছে গোয়েন্দা পুলিশ।

গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল রোববার ট্রাইব্যুনালে তদন্ত করে গুরুত্বপূর্ণ আলামত জব্দ করেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ কর্মকর্তারা।

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর রায়ের অংশ বিশেষ অনলাইনে ফাঁস হয়ে যাওয়ার পর এ নিয়ে ব্যাপক আলোচনা চলছে।

রায়ের খসড়া ফাঁস হয়ে যাবার পর ট্রাইব্যুনালের তরফ থেকে থানায় একটি সাধারন ডায়েরি করা হয়েছিল।

এরপর তদন্ত শুরু করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। তদন্তের অংশ হিসেবে গোয়েন্দা পুলিশ রোববার ট্রাইব্যুনালে গিয়েছিল।

তদন্তকারী কর্মকর্তারা বলছেন, তারা প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছেন যে রায়ের খসড়া ট্রাইব্যুনাল থেকেই কেউ ফাঁস করেছে।

গোয়েন্দা পুলিশের উপকমিশনার কৃষ্ণপদ রায় বলেন, সন্দেহভাজন একজন ব্যক্তির সাথে কক্ষ থেকে তারা গুরুত্বপূর্ণ আলামত জব্দ করেছেন।

রায়ের অংশ বিশেষ ফাঁস হওয়ার ঘটনায় যে তিনজনকে গোয়েন্দা পুলিশ অভিযুক্ত করেছে তাদের মধ্যে দুইজন ট্রাইব্যুনালের নিম্ন পর্যায়ের কর্মচারি। এবং আরেকজন সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর আইনজীবির সহকারি।

Image caption রায়ের খসড়া টাইব্যুনাল থেকেই ফাঁস হয়েছে বলে পুলিশের সন্দেহ।

গোয়েন্দা পুলিশ ধারণা করছে, এই প্রক্রিয়ার সাথে আরও কেউ জড়িত থাকতে পারে। গোয়েন্দা পুলিশের উপ কমিশনার কৃষ্ণপদ রায় বলেন, তদন্তের মাধ্যমে সেটি আরও পরিষ্কার হবে বলে তারা আশা করছেন।

এদিকে কয়েকদিন আগেই গোয়েন্দা পুলিশ সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর আইনজীবির ব্যারিষ্টার ফখরুল ইসলামের অফিসে তল্লাশি চালিয়ে কম্পিউটার এবং কিছু জিনিষপত্র জব্দ করেছে।

মি. চৌধুরীর পরিবারের সূত্রগুলো বলেছে, তারা সেই আইনজীবির সাথে যোগাযোগ করতে পারছেন না। কারণ তল্লাশীর পর থেকেই আইনজীবীর মোবাইল ফোন বন্ধ রয়েছে।

অন্যদিকে, বিভিন্ন উপায়ে আইনজীবি ফখরুল ইসলামের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও সেটি সম্ভব হয়নি।

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর পরিবারের সূত্রগুলো বলছে, ট্রাইব্যুনালের রায়ের বিরুদ্ধে তারা সুপ্রিম কোর্টে আপিল করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

কিন্তু আইনজীবীর সাথে যোগাযোগ না থাকায় সেদিকে অগ্রসর হওয়া যাচ্ছেনা বলে জানিয়েছে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর পরিবারের সূত্রগুলো।

এই খবর নিয়ে আরো তথ্য