আটক পাঁচ বিএনপি নেতা জেল হাজতে

  • ৯ নভেম্বর ২০১৩
পুলিশ পাহারায় আদালতে নেয়া হচ্ছে পাঁচ বিএনপি নেতাকে

বাংলাদেশে বিএনপির পাঁচ গুরুত্বপূর্ণ নেতাকে দুটি মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

শুক্রবার রাতে আটক করা এই পাঁচজনকে পুলিশ শনিবার ঢাকার মুখ্য মহাগর হাকিমের আদালতে হাজির করে।

দুটি মামলায় এদেরকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ দশ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানায়। দুদিন পর এই আবেদনের শুনানি হবে।

বিএনপি নেতা মওদুদ আহমেদ, এম কে আনোয়ার, রফিকুল ইসলাম মিয়া, আবদুল আউয়াল মিন্টু এবং শিমুল বিশ্বাসকে পুলিশ শুক্রবার রাতে আটক করে।

প্রথম তিনজনকে আটক করা হয় ঢাকার কারওয়ান বাজারে সোনারগাঁও হোটেলে এক অনুষ্ঠানে যোগদান শেষে বেরিয়ে আসার পর।

আবদুল আউয়াল মিন্টু এবং শিমুল বিশ্বাস গ্রেফতার হন গভীর রাতে গুলশানে বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার অফিস থেকে বেরিয়ে আসার পর।

পুলিশ জানিয়েছে, এই পাঁচ বিএনপি নেতাকে দুটি মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশের কাজে বাধাদান, অগ্নিসংযোগ এবং বিস্ফোরক আইনে এ দুটি মামলা করা হয়েছিল।

এর মধ্যে একটি মামলা দায়ের করা হয় গত সেপ্টেম্বর মাসের ২০ তারিখে এবং অপরটি এ মাসের ৫ তারিখে।

গ্রেপ্তারকৃত বিএনপি নেতাদের বিকেলে ঢাকার মূখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে হাজির করা হয় এবং সেখানে পুলিশ তাদের প্রত্যেককে দুটি মামলায় ১০ দিন করে রিমান্ডের আবেদন জানায়।

এদিকে বিএনপি নেতাদের পক্ষ থেকেও জামিনের আবেদন করা হয়।

আদালত দুটি আবেদনেরই শুনানি আগামী বৃহস্পতিবার হবে বলে জানিয়েছেন।

বিএনপি নেতাদের একজন আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, এজাহারে এই নেতাদের নাম না থাকায় আমরা তাদের জামিনের আবেদন জানিয়েছিলাম। আদালত প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ আগামী বৃহস্পতিবার জামিন আবেদনের শুনানি হবে বলে জানিয়েছেন।

আইনজীবী সানাউল্লা মিয়া জানান, যেহেতু রিমান্ডের আবেদনটিরও শুনানি আগামী বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত হবে, সেকারণে এর আগে উচ্চ আদালতে জামিনেরও আবেদন তারা করছেন না।