আফগানিস্তানে ভূমিধসে উদ্ধারকাজ বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে

  • ৩ মে ২০১৪

আফগানিস্তানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ বাদাখশানে ভূমিধসের ঘটনায় উদ্ধারকাজ বন্ধ করে দিচ্ছে উদ্ধারকর্মীরা।

ঘটনাস্থল থেকে বিবিসির সংবাদদাতা বলছেন, কর্মকর্তারা মনে করছেন যে উদ্ধারকাজ চালিয়ে আর কোন লাভ নেই।

এখন পর্যন্ত সাড়ে তিনেশোরও বেশি মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

আফগান কর্মকর্তারা বলছেন, তারা মনে করছেন নিহতের সংখ্যা পাঁচশোর বেশি হবে না।

এর আগে, মানুষজনকে সাথে নিয়ে উদ্ধারকর্মীরা শাবল ও খালি হাতেই কাদামাটি খুঁড়ে উদ্ধার কাজ চালায়।

আরো ভূমিধসের আশঙ্কায় বেশ কিছু গ্রাম থেকে মানুষ সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

স্থানীয় কর্মকর্তারা আশঙ্কা করছেন, গত রাতেই সাড়ে তিনশোর মতো মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। তবে জীবিত কাউকে পাওয়া যায় নি।

Image copyright AP
Image caption পুরো এলাকাটাই যেনো একটা গণকবরে পরিণত হয়েছে

শুক্রবার প্রবল বৃষ্টিতে উত্তর-পূবের প্রত্যন্ত ও পাহাড়ি বাদাখশান প্রদেশে পাহাড়ের একটি অংশ ধসে পড়লে বহু বাড়িঘর মাটিতে মিশে গেছে।

ভূমিধ্বসের দ্বিতীয় দিনে স্থানীয় গ্রামবাসীদের সাথে নিয়ে উদ্ধারকর্মীরা কাদামাটির নিচ থেকে লোকজনকে উদ্ধার করতে মরিয়া হয়ে চেষ্টা চালায়।

এতে অংশ নিতে আশেপাশের গ্রাম থেকেও লোকজন ছুটে আসে।

কর্মকর্তারা বলছেন, শুক্রবার ছুটির দিন হওয়াতে সবাই মোটামুটি বাড়িতেই ছিলেন আর একারণেই নিহতের সংখ্যা এতো বেশি।

তারা বলছেন, ধসে যাওয়া পুরো এলাকাটাই একটা গণকবরে পরিণত হয়েছে।

খোলা আকাশের নিচে অবস্থান করছে বহু মানুষ। তাদের জন্যে খাবার দাবার, পানি, ওষুধ আর অস্থায়ী আশ্রয়ের ব্যবস্থা করতেই জোর দেওয়া হচ্ছে।

কাবুল থেকে বিবিসির সংবাদদাতা বলছেন, বাদাখশান প্রদেশে প্রায় প্রত্যেক বছরেই ভূমিধসে লোকজনের প্রাণহানি ঘটে।

তবে সবশেষ এই ঘটনায় এতো মানুষের প্রাণহানি সবাইকে বিস্মিত করেছে।