iraq_nuclear_israel_attack
আপনার ডিভাইস মিডিয়া প্লেব্যাক সমর্থন করে না

ইতিহাসের সাক্ষী

১৯৮১ সালে জুন মাসে ইসরাইল এক বিমান হামলা চালিয়ে ইরাকের একটি পারমাণবিক চুল্লি ধ্বংস করে দিয়েছিল।

এটাই ছিল কোন পারমাণবিক স্থাপনার ওপর চালানো পৃথিবীর প্রথম প্রি-এম্পটিভ স্ট্রাইক বা আগাম হামলা।

ইসরাইল বলছিল, ইরাকের পরমাণু কর্মসূচির উদ্দেশ্য ছিল বোমা তৈরি করা এবং তা ইসরাইলের বিরুদ্ধে ব্যবহার করা। কিন্তু ইরাকি বিজ্ঞানীরা বলেন, ওই স্থাপনাটি ছিল একটি পারমাণবিক চুল্লি মাত্র। তখন তাদের পরমাণু অস্ত্র তৈরির কোন পরিকল্পনাই ছিল না, বরং ইসরাইলের হামলার পরই তাদের মধ্যে এ আক্রমণের জবাব হিসেবে পরমাণু বোমা বানানোর চিন্তা শুরু হয়।

আজকের ইতিহাসের সাক্ষীতে শুনবেন দুজন ইরাকি পরমাণু বিজ্ঞানী ইমাদ কাদুরি এবং দাফির সালভির কথা, যারা ইরাকের পরমাণু অস্ত্রের অধিকারী হবার প্রয়াসের সাথে ঘনিষ্ঠভাবে জড়িত ছিলেন।

বিবিসির লুইস হিদালগোর কাছে তারা বলছিলেন – ইসরাইলি আক্রমণের কারণেই তারা পরমাণু বোমা বানানোর কাজে হাত দিতে উৎসাহিত হয়েছিলেন।

এ নিয়েই এবারের ইতিহাসের সাক্ষী। পরিবেশন করেছেন পুলক গুপ্ত।