নিউ ইয়র্কের ফ্যাশন উইকে হিজাব পরিহিত মডেল

নিউ ইয়র্ক ফ্যাশন উইক ২০১৬ তে আনিসা হাসিবুয়ানের ডিজাইনের পোশাক কালেকশন।
ছবির ক্যাপশান,

মুসলিম পোশাকে ক্যাটওয়াকে অংশগ্রহণ

নিউ ইয়র্ক ফ্যাশন উইকে প্রথমবারের মতো হিজাব পরে ক্যাটওয়াকে অংশ নিয়েছেন মডেলরা।

মুসলিম ডিজাইনার আনিসা হাসিবুয়ানের করা ডিজাইনে এই মডেলরা পোশাক পরে ক্যাটওয়াকে অংশ নেন।

এই প্রথমবারের মতো তিনি ইন্দোনেশিয়ার প্রতিনিধিত্ব করেন।

যখন মুসলিম নারীরা তাদের পছন্দমতো পোশাক পরিধানে তীব্র বাধার সম্মুখীন হচ্ছেন, তাদের পোশাক নিয়ে বিতর্কের তৈরি হচ্ছে- এমনই এক সময়ে হাসিবুয়ানের ডিজাইন করা পোশাক প্রদর্শিত হলো।

এমন পরিস্থিতিতে এই পোশাক প্রদর্শনী হিজাবকে মেইনস্ট্রিমের পোশাকে পরিণত করতে সহায়তা করবে বলেই আয়োজকরা ধারণা করছেন।

হাসিবুয়ানের শহর জাকার্তায় মহিলারা যে ধরনের পোশাক পরেন তার বেশ প্রভাব লক্ষ্য করা গেছে অনুষ্ঠানে প্রদর্শিত পোশাকে ।

ডিজাইন করা পোশাকগুলো ছিল বেশ ঢিলেঢালা,দামি কাপড়ের ওপর ছিল এমব্রয়ডারি এবং সবাই ছিলেন হিজাব পরিহিত।

৩০ বছর বয়সী হাসিবুয়ান ফ্যাশন শো শেষে সমালোচকদের বেশ প্রশংসাও কুড়িয়েছেন।

"পোশাক প্রদর্শনীটি সফলভাবে শেষ করতে পারায় সবার কাছে কৃতজ্ঞ। বিশেষ করে একটি শক্তিশালী দলের কাছে কৃতজ্ঞ, যাদের কাজের কারণে প্রতিকূল সময়েও আমরা শক্তিশালী ভূমিকা রাখতে পেরেছি"- শো শেষে এক ইনস্টাগ্রাম বার্তায় হাসিবুয়ানের মন্তব্য।

ছবির ক্যাপশান,

গত বছর ওয়ার্ল্ড ফ্যাশন শোতে আনিসা হাসিবুয়ান।

ছবির ক্যাপশান,

মডার্ন মুসলিম নারীদের লক্ষ্য করেই পোশাকের ডিজাইন।

যুক্তরাষ্ট্রের ব্র্যান্ড হোতে হিজাবের প্রধান নির্বাহী মেলানি এলতুর্ক মনে করেন, বর্তমান সমাজে পরিবর্তনের জন্য ফ্যাশন একটা বড় প্ল্যাটফর্ম।

''অ্যামেরিকায় হিজাবকে সাধারণ চোখে দেখার জন্য একটা উদ্যোগ প্রয়োজন।''

আনিসার ডিজাইন করা পোশাক ফ্যাশনউইকে প্রদর্শন একটা বড় অগ্রগতি বলে মনে করছেন তিনি।

ছবির ক্যাপশান,

কিছু মানুষ মনে করছে পোশাকের ডিজাইনগুলো মুসলিম নারীদের চিন্তাচেতনার পরস্পরবিরোধী মনোভাব তুলে ধরছে।