জাপানে শক্তিশালী ভূমিকম্পের পর ফুকুশিমায় সুনামির আঘাত

জাপানের আবহাওয়া অধিদপ্তর
ছবির ক্যাপশান,

কর্তৃপক্ষ বলছে ২০১১ সালে ফুকুশিমায় ভূমিকম্পের পর সেখানে বছরের পর বছর আফটার শক অনুভূত হচ্ছে।

জাপানের দক্ষিণ পূর্বাঞ্চলে ৭.৪ মাত্রার ভূমিকম্পের পর ফুকুশিমা পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্রে এক মিটার উঁচু সুনামির ঢেউ আঘাত হেনেছে।

সেখানে তিন মিটার উঁচু ঢেউ আঘাত হানার সম্ভাবনা রয়েছে, সেখানে বসবাসরত মানুষকে উঁচু স্থানে অবস্থানের জন্য ইতোমধ্যে নির্দেশও দিয়েছে জাপান সরকার।

জাপান মেট্রোলজিক্যাল এজেন্সির খবর অনুযায়ী মঙ্গলবার স্থানীয় সময় ভোর ৬টায় জাপানে এই তীব্র ভূমিকম্প অনুভূত হয়।

ওই ভুমিকম্পের উৎসস্থল ছিলো ফুকুশিমা থেকে ৭০ কিলোমিটার দূরে। ক্ষয়ক্ষতি সম্পর্কে এখনও কোনো ধারণা পাওয়া যায়নি।

এর আগে ২০১১ সালে ভয়াবহ এক ভূমিকম্পের ফুকুশিমায় ঐ পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্রটি ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিলো। সে সময় ১৮ হাজারেরও বেশি মানুষ প্রাণ হারায়।

তবে কর্তৃপক্ষ বলছে এবার তেমন ক্ষয়ক্ষতির কোনও সম্ভাবনা নেই।

ভূমিকম্প আঘাত হানার পর যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক জরিপ দপ্তর ইউএসজিএস প্রথম মাত্রা ৭.৩ জানালেও পরে তার জানায়, এই ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল রিখটার স্কেলে ৬.৯।

তবে জাপানের কর্তৃপক্ষ বলছে এটি ৭.৪ মাত্রার ভূমিকম্প।

ছবির ক্যাপশান,

মানুষজনকে নিরাপদে সরে যাবার নির্দেশ দেয়ার পর জাপানের রাস্তায় সকালেই তৈরি হয় যানজট।