থার্টিফার্স্ট নাইটে ঢাকায় বন্ধ থাকবে পানশালা, উন্মুক্ত স্থানে উৎসব নয়

বাংলাদেশ, পুলিশ, ঢাকা
ছবির ক্যাপশান,

রাজধানী ঢাকায় বিশেষ কিছু জায়গায় নিয়ন্ত্রিত হবে চলাচল। বার, ক্লাব বন্ধ। উন্মুক্ত স্থানে কোন আয়োজন করা যাবেনা।

থার্টিফার্স্ট নাইট ও ইংরেজী নববর্ষের প্রথম প্রহরকে সামনে রেখে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে বাংলাদেশের আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, নিরাপত্তায় থাকবে দশ হাজারের বেশি পুলিশ।

ঢাকা শহরের বার বা পানশালাগুলো শনিবার সন্ধ্যা ছয়টা থেকে রোববার সকাল পর্যন্ত বন্ধ থাকবে।

পুলিশের নির্দেশনায় শহরের কিছু বিশেষ এলাকায় যাতায়াতে নিয়ন্ত্রণ এবং উন্মুক্ত স্থানে যে কোন আয়োজন না করতে বলা হয়েছে।

পুলিশ কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া আজ এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন রাজধানীর সব পানশালা সন্ধ্যা ৬টার পর খোলা রাখা যাবেনা। আর উন্মুক্ত স্থানে নববর্ষ উদযাপনে কোন আয়োজন করা যাবেনা।

ছবির ক্যাপশান,

ঢাকার পানশালাগুলো বন্ধ রাখতে হবে থার্টি ফার্স্ট নাইটে

বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে আতশবাজি বা পটকা ফোটানোর ওপর।

আর গুলশান, বনানী ও বারিধারার বসবাসরতদের রাত আটটার মধ্যে নিজ এলাকায় ফিরে আসার অনুরোধ করা হয়েছে।

এরপর হাতিরঝিল, গুলশান ও বনানী যাওয়ার সড়ক বন্ধ করে দেয়া হবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় প্রবেশ করতে দেয়া হবেনা বহিরাগতদের।

তবে পাঁচ তারকা হোটেল গুলো বিশেষ ব্যবস্থায় খোলা থাকবে।