রক্তাক্ত এক কিশোরকে সাহায্যের বদলে ভিডিও করলো পথচারীরা

হাসপাতালে কিশোরের দেহ
ছবির ক্যাপশান,

ডাক্তাররা বলছেন দুর্ঘটনার পরপর নিয়ে আসা হলে ওই কিশোরকে বাঁচানো যেত

ভারতের কর্ণাটকের ঘটনা। এক কিশোরের রক্তাক্ত দেহ রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখেও পথচারীরা ব্যস্ত ছিল তার ভিডিও করা নিয়ে। কিশোরকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসেনি কেউ ।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো বলছে, ওই কিশোরের দেহের পাশে জড়ো হয়ে পথচারীরা ছবি তুলছিল এবং ভিডিও করছিল। কিন্তু কেউ তাকে নিয়ে হাসপাতালে যাবার প্রয়োজন বোধ করেনি।

ওই কিশোরের নাম আনোয়ার আলী, তার বয়স ১৭ বছর। সাইকেলে করে যাবার সময় একটি বাস তাকে চাপা দিয়ে চলে যায়।

দুর্ঘটনার আধা ঘন্টা পর তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

অতিরিক্ত রক্তপাতের কারণে আনোয়ার আলীর মৃত্যু হয় হাসপাতালে।

ডাক্তাররা বলছেন, ঘটনার পরপরই চিকিৎসা দেয়া গেলে বাঁচানো যেত ওই কিশোরকে। ভারতের কর্ণাটক রাজ্যের কোপাল জেলায় এ দুর্ঘটনাটি ঘটে।

আর এরপর থেকে সড়ক দুর্ঘটনায় আহতদের সাহায্য ভারতের মানুষের অনাগ্রহের বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক আবারও শুরু হয়েছে।

মানবাধিকার কর্মীরা বলছেন, এ ঘটনা পুরো সিস্টেমের ভগ্নদশাকে তুলে ধরছে।

আরও পড়ুন: