মাঠে ময়দানে
আপনার ডিভাইস মিডিয়া প্লেব্যাক সমর্থন করে না

মুশফিক কি বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক থাকতে পারবেন?

বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম যে বোর্ড প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসানের রোষানলে পড়েছেন গত সপ্তাহেই তা স্পষ্ট হয়ে গেছে।

দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট সিরিজে যেভাবে বাংলাদেশ নাকাল হয়েছে, তাতে বোর্ড বিড়ম্বিত, এবং দোষারোপের তোপ দাগা হয়েছে প্রধানত অধিনায়কের দিকে।

কেন তিনি টসে জিতেও বোলিং নিলেন? কেন তিনি দক্ষিণ আফ্রিকায় বসে টিম ম্যানেজমেন্টের সমালোচনা করলেন - এ নিয়ে তার ক্ষোভ চেপে রাখেননি মি হাসান। সাংবাদিকদের সামনে খোলাখুলি বলেছেন, বিদেশের মাটিতে টিম ম্যানেজমেন্ট নিয়ে প্রশ্ন তুলে মুশফিক দেশের সম্মান ক্ষুণ্ণ করেছেন।

নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, ইচ্ছার বিরুদ্ধে তাকে উইকেট কিপিং থেকে সরিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত কখনই পছন্দ করেননি মুশফিক। তাছাড়া, বিভিন্ন সময়ে তার কর্তৃত্বকে খাটো করা হচ্ছে বলে তার ক্ষোভ রয়েছে। পরিস্থিতি যা দাঁড়িয়েছে, তাতে মুশফিকের পক্ষে আর কতদিন অধিনায়ক থাকা সম্ভব হবে?

বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাবেক কোচ এবং বিপিএল-এ রাজশাহী কিংসের হেড কোচ সারওয়ার ইমরান বিবিসি বাংলাকে বলেন, মুশফিককে নিয়ে যা হচ্ছে তা কাম্য নয়।

"একটি টেস্ট দলে অধিনায়ক সবচেয়ে ক্ষমতাধর। তাকে যদি বাইরে থেকে বুদ্ধি দেওয়া হয়, বাউন্ডারি লাইনে ফিল্ডিং করতে বলা হয়, তাহলে কতটুকু অধিনায়কত্ব সে করতে পারবে, আমার বোধগম্য নয়।"

"আমার মনে হয়না এরপর মুশফিকুর রহিমের জন্য আর অধিনায়কত্ব করা সমীচীন হবে, তার পক্ষে হয়তো আর সম্ভবও হবেনা।"

কেন এই চাপ তৈরি হয়ে থাকতে পারে মুশফিকের ওপর?

সারওয়ার ইমরান মনে করেন, টিম ম্যানেজমেন্টের পছন্দ অপছন্দের ব্যাপার থাকতে পারে। "ম্যানেজমেন্ট হয়তো মনে করছে লিটন দাস বা সোহানকে উইকেট কিপিং-এ আনলে তারা অনেক দিন সার্ভিস দিতে পারবে..আমি তো এ ছাড়া কোনো কারণ দেখি না।"

কিন্তু দক্ষিণ আফ্রিকায় টসে জিতে মুশফিকের বোলিং নেওয়ার সিদ্ধান্তে অনেক বিশ্লেষকই চোখ কপালে তুলেছেন। মুশফিক কি নিজেই নিজের অবস্থানকে দুর্বল করে ফেলছেন না?

সারওয়ার ইমরান বলেন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে টসে জিতে ব্যাটিং বোলিং নেওয়ার সিদ্ধান্ত অধিনায়ক কখনই একা নেননা। "দলে একটি থিংক ট্যাংক থাকে, সেখানে হেড কোচ থাকেন, অধিনায়ক থাকেন, সহ অধিনায়ক থাকেন, ফিল্ডিং কোচও থাকতে পারেন...।"

তিনি বলেন, পিচের অবস্থা বিবেচনা করে আগে থেকেই একটা সিদ্ধান্ত নেওয়া থাকে। "প্রধানত কোচ এবং ক্যাপ্টেন মিলে এসব সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন। কখনই মুশফিক একা ঐ সিদ্ধান্ত নেননি।"

শাকিল আনোয়ার

সম্পর্কিত বিষয়