নামী অধ্যাপকদের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ ফেসবুকে

যৌন নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্দোলন জোরদার হচ্ছে বাংলাদেশেও।
Image caption যৌন নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্দোলন জোরদার হচ্ছে বাংলাদেশেও। (ফাইল ফটো)

যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী এক বাঙালী আইনজীবী ফেসবুকে শিক্ষার্থীদের ওপর যৌন নির্যাতন চালায় এমন ৬০ জন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকের নামের তালিকা একটি প্রকাশ করার পর সোশাল মিডিয়ায় সেটি ভাইরাল হয়েছে।

এই তালিকায় ভারত, যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, অস্ট্রেলিয়ার বহু নামীদামী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের নাম রয়েছে।

তালিকায় অন্যান্যদের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ১২ জন অধ্যাপকের নাম রয়েছে।

দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক রয়েছেন নয় জন।

তালিকায় অভিযুক্ত শিক্ষকদের মধ্যে একটা বড় অংশ বাঙালী।

এসব অভিযোগের ব্যাপারে তালিকায় থাকা শিক্ষকদের কোন বক্তব্য তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি।

এই তালিকাটি যিনি তৈরি করেছেন, সেই রায়া সরকার ফেসবুকে নিজেকে একজন আইনজীবী হিসেবে ব্যাখ্যা করে বলেছেন, তিনি কারাবন্দীদের অধিকার, প্রজনন অধিকার এবং জাতপাতের বিরুদ্ধে আইনি লড়াইয়ে আগ্রহী।

ছবির কপিরাইট রায়া সরকার
Image caption রায়া সরকারের ফেসবুক ওয়াল থেকে

যৌন নির্যাতনকারী শিক্ষকদের নামের তালিকা প্রকাশ করার আগে নিজের ফেসবুক ওয়ালে তিনি পোস্ট করেন, "আপনারা যদি এমন কোন শিক্ষক সম্পর্কে জানেন যারা শিক্ষার্থীদের ওপর যৌন নির্যাতন চালিয়েছে, তাদের নামধাম আমাকে পাঠালে আমি সেটা তালিকায় যোগ করবো।"

এই পোস্ট দেয়ার পর পরই তালিকায় একের পর এক নাম যোগ হতে থাকে।

ফেসবুকে এর পক্ষে বিপক্ষে নানা মন্তব্য পোস্ট হতে থাকে।

কোন ধরনের ব্যাখ্যা বা ঘটনার পূর্বাপর বর্ণনা ছাড়াই যেভাবে এই নামের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে, এর বিরুদ্ধে ভারতের কিছু নারীবাদী ব্যক্তিত্ব বক্তব্য দিয়েছেন।

এক যৌথ বিবৃতিতে আয়েশা কিদওয়াই, কবিতা কৃষনান, ভৃন্দা গ্রোভারসহ ক'জন শীর্ষস্থানীয় নারী অধিকার আন্দোলনকর্মী বলছেন, তালিকায় এমন দু'একজন রয়েছেন যাদের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ এর আগে প্রমাণিত হয়েছে।

কিন্তু তাদের নামের পাশে এমন আরো কিছু নাম রয়েছে যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ এখনও প্রমাণিত হয়নি।

কোন ধরনের জবাবদিহিতা ছাড়াই অভিযোগকারীর পরিচয় গোপন রেখে কারও নাম প্রকাশ করার বিষয়টি আশঙ্কাজনক বলে বিবৃতিতে তারা উল্লেখ করেন।

আরো পড়তে পারেন:

ভারতের সিনেমা হলে জাতীয় সঙ্গীত বাজানো নিয়ে চ্যালেঞ্জ

কেটামিন মাদক হিসেবে বাংলাদেশে থেকে পাচার

রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেবার পরিকল্পনা সফল হবে?

সম্পর্কিত বিষয়