নার্ভ গ্যাস দিয়ে নেতার সৎভাইকে হত্যা করেছে উত্তর কোরিয়া: যুক্তরাষ্ট্র

ছবির কপিরাইট AFP
Image caption কিম জং-নাম

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-আনের সৎভাই কিম জং-নামকে রাসায়নিক গ্যাস দিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

উত্তর কোরিয়ার সরকারের নির্দেশে মালয়েশিয়ার বিমানবন্দরে ভিএক্স নার্ভ তাকে হত্যা করা হয় বলে মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর জানিয়েছে।

২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে কুয়ালালামপুর বিমানবন্দরে মারা যান কিম জং-নাম। ভিডিও ফুটেজে দেখা যায় যে, দুই তরুণী মুখে কিছু একটা চেপে ধরছে।

হত্যার অভিযোগে মালয়েশিয়ায় ওই দুই তরুণীর বিচার চলছে। অবশ্য তাদের দাবি, তারা মনে করেছিল যে, একটি পাঙ্ক টেলিভিশন অনুষ্ঠানের জন্য তারা কাজ করছে।

ছবির কপিরাইট Reuters
Image caption সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়ার মন্ত্রীদের সঙ্গে হাসিমুখে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-আন

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর বলছে, এই কাজের জন্য উত্তর কোরিয়ার উপর নতুন নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হবে।

তবে এ ধরনের কোন কাজে জড়িত থাকার অভিযোগ নাকচ করে দিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

দক্ষিণ কোরিয়ার একটি উচ্চপদস্থ প্রতিনিধি দল পিয়ংইয়ং সফর করে আসার পরপরই এই তথ্য জানা গেল।

সৎ ছোটভাই কিম জং-আনের কাছে নেতৃত্ব চলে যাবার পর পরিবার থেকে অনেকটা বিচ্ছিন্ন ছিলেন কিম জং-নাম। তার বেশিরভাগ সময় কেটেছে ম্যাকাও, মেইনল্যান্ড চায়না, সিঙ্গাপুরে।

বিভিন্ন সময় তিনি উত্তর কোরিয়ায় তাদের পারিবারিক নিয়ন্ত্রণের বিরুদ্ধে কথা বলেছেন। একটি বইয়ে তাকে উদ্ধৃত করে লেখা হয় যে, তিনি মনে করেন, তার ছোট ভাইয়ের নেতৃত্ব দেয়ার যোগ্যতার অভাব রয়েছে।