চুরি যাওয়া পশুর বাহন যখন বিলাসবহুল শেভ্রলে

ছবির কপিরাইট BUKHARA POLICE
Image caption ম্যালিবু শেভ্রলে গাড়ির পেছনের জানালা দিয়ে মুখ বের করে থাকা বাছুর

উজবেকিস্তানের বুখারা গ্রামে গত কিছুদিন থেকেই চুরি যাচ্ছিল গরু-ছাগল, ভেড়াসহ নানা ধরণের গবাদিপশু।

কোথা থেকে কিভাবে এসব পশু হঠাৎ হাওয়া হয়ে যাচ্ছে, কেউ ধরতে পারছিল না।

আর চোরও ভীষণ সতর্ক। কখন চুরি যায়, আর সেগুলো কিভাবে গ্রামের বাইরে চলে যায়, কেউই ধরতে পারছিল না।

অনেক অনুসন্ধানের পর জানা যায়, পুলিশের চোখ ফাঁকি দেবার জন্য চোরের দল চুরি যাওয়া পশু একটি ম্যালিবু শেভ্রলে গাড়িতে করে আনা নেওয়া করত।

দামী গাড়ীটি গ্রামে ঢোকার বা বেরুনোর সময় কেউ সন্দেহ করেনি।

আবার দামী গাড়ী বলে কেউ প্রশ্নও করেনি প্রায়ই কেন আসে এই গাড়ি, আর কার কাছে আসে।

গত কয়েকদিন ধরে ম্যালিবু শেভ্রলে গাড়ির পেছনের জানালা দিয়ে মুখ বের করে থাকা একটি বাছুরের ছবি নিয়ে দেশটির সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন সরগরম।

অনেকে ক্যাপশন দিয়েছেন, "দামী গাড়ীতে চড়ে গরুটি অন্তত খুশী"।

কেউ লিখেছেন, "ম্যালিবু গাড়িতে করে বিয়ের কনের মত এসেছে বাছুর"।

জেনারেল মোটরসের এই অ্যামেরিকান ব্রান্ড ম্যালিবু শেভ্রলে উজবেকিস্তানে ভীষণ জনপ্রিয়।

শেভ্রলের দাম এখন বিশ্বব্যাপী অনেক কমে গেলেও, ৩০ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি দামের, মালিবু শেভ্রলে এখনো বেশ দামী।

আর উজবেকিস্তানের বাজারে এটি সবচেয়ে দামী গাড়ীর অন্যতম।

পুলিশ বলছে, চুরি করা গবাদি পশু সীমান্তে বিক্রি করে দিত সংঘবদ্ধ চোরের দল।

আর গাড়ীটিও চুরি করা গাড়ি। তবে গাড়ীর মালিকের সন্ধান এখনো পায়নি পুলিশ।

আরও পড়ুন:

কে ছিলেন উইনি ম্যান্ডেলা?

মাশরাফির অবসর ভাবনা: ক্রিকেট নাকি রাজনীতি?

কেন বদলে দেওয়া হলো জেলার ইংরেজি বানান

সম্পর্কিত বিষয়