বিদেশে বসে 'মনগড়া বই' লিখছেন সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহা, বলছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ছবির কপিরাইট facebook page of Obaidul Quader
Image caption আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের

বিদেশে বসে মনগড়া বই লিখেছেন সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহা, এই মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বাংলাদেশের সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা একটি আত্মজীবনীমূলক বই প্রকাশ করেছেন যেখানে তিনি দাবি করছেন তাকে সরকার ও সামরিক গোয়েন্দা সংস্থার চাপ এবং হুমকির মুখে দেশত্যাগ করতে হয়েছে।

বিচারপতি সিনহার বই 'এ ব্রোকেন ড্রিম: রুল অব ল, হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড ডেমোক্রেসি" মাত্রই প্রকাশিত হয়েছে।

আরো পড়তে পারেন:

সরকারের হুমকিতে দেশ ছেড়েছি: সুরেন্দ্র সিনহা

আপনার ডিভাইস মিডিয়া প্লেব্যাক সমর্থন করে না
আপনাকে বলা হলো পদত্যাগ করবেন, আপনি করছেন না

বৃহস্পতিবার ঢাকায় বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে একটি অনুষ্ঠানে বইটি নিয়ে সাংবাদিকরা প্রশ্ন করলে ওবায়দুল কাদের জবাবে বলেন, ''ক্ষমতা হারানোর জ্বালা থেকে বিচারপতি এস কে সিনহা বই লিখে মনগড়া কথা বলছেন। ক্ষমতায় যখন কেউ থাকে না, তখন অনেক অন্তর্জ্বালা বেদনা থাকে। এই অন্তর্জ্বালা থেকে অনেকে অনেক কথা বলেন।''

''বিদেশে বসে যারা এরকম কথা বলে, সেটা নিয়ে কোন কথা বলার প্রয়োজন আছে বলে আমরা মনে করি না'', বলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

''উনি প্রধান বিচারপতি থাকা অবস্থায়, এখন যা বলছেন বইতে, সেটা বলার সাহস কেন একজন বিচারপতির থাকে না - এটা নৈতিকতার প্রশ্ন,'' বলছেন মি. কাদের।

Image caption সুরেন্দ্র কুমার সিনহার বইয়ের প্রচ্ছদ

ওই বইয়ে বিচারপতি সিনহা সবিস্তারে বর্ণনা করেছেন কোন পরিপ্রেক্ষিতে সরকারের সঙ্গে তাঁর বিরোধ তৈরি হয়েছিল। বইয়ে তিনি আরও দাবি করেছেন কিভাবে তাকে দেশত্যাগে বাধ্য করা হয় এবং এরপর কেন তিনি প্রধান বিচারপতির পদ থেকে পদত্যাগে বাধ্য হন।

তিনি দাবি করেন, বাংলাদেশের সামরিক গোয়েন্দা সংস্থা ডিজিএফআইয়ের হুমকি ও ভীতি প্রদর্শনের মুখে তিনি দেশে ছেড়েছেন। বিচারপতি সিনহা লিখেছেন, বাংলাদেশের সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়টি যেন সরকারের পক্ষ যায়, সেজন্যে তার ওপর 'সরকারের সর্বোচ্চ মহল থেকে চাপ তৈরি করা হয়েছিল।'

মি. সিনহার পদত্যাগের ঘটনা ঘটেছিল ২০১৭ সালে সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিল সংক্রান্ত একটি মামলার আপিলের রায়কে কেন্দ্র করে। এ রায় নিয়ে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ এবং সরকারের কাছ থেকে প্রচণ্ড চাপের মুখে বিচারপতি সিনহা দেশ ছেড়ে যান বলে অভিযোগ রয়েছে।

মি. সিনহা এখন যুক্তরাষ্ট্রে রয়েছেন।

বিবিসি বাংলার অন্যান্য খবর:

আফগানিস্তান যেভাবে প্রতিপক্ষের জন্য হুমকি হয়ে ওঠে

একজন নারী দেহরক্ষীর গোপন জীবন

তিন তালাক শাস্তিযোগ্য অপরাধ: ভারতে নির্বাহী আদেশ

যেভাবে টাকার বিনিময়ে ফুটবল ম্যাচ পাতানো হতো