সৈকতের বালি চুরি বন্ধ করতে গুপ্তচর সংস্থার সাহায্য!

ছবির কপিরাইট Getty
Image caption বালি চুরির হিড়িক পড়েছে ক্রাইমিয়ায়

পর্যটকদের কাছে জনপ্রিয় ক্রাইমিয়ার সমূদ্র সৈকতগুলো থেকে বালি চুরির হিড়িক পড়ার পর কর্মকর্তারা এর বিরুদ্ধে সতর্ক করে দিয়েছেন। বিবিসি মনিটরিং স্থানীয় একটি সংবাদপত্রকে উদ্ধৃত করে এই খবর দিচ্ছে।

নির্মাণ কাজে ব্যবহারের জন্য মূলত সৈকতের বালি চুরি করা হচ্ছে।

ক্রাইমিয়ার রুশ সমর্থিত প্রধানমন্ত্রী সের্গেই আকসিনভ বলেছেন, বালি চুরি করার সময় যারাই ধরা পড়বে, তাদের বিচার করা হবে।

এমনকি বালি চোরদের ধরতে রুশ গোয়েন্দা সংস্থা এফএসবিকে পর্যন্ত তিনি একাজে লাগাতে চান।

বালি চুরি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেকে নানা ধরণের মজার মন্তব্য করছেন।

একজন রসিকতা করে লিখেছেন, “কৃষ্ণ সাগরে মার্কিন যুদ্ধজাহাজ এসে যে বিরাট ঢেউ তৈরি করছে, তাতেই ক্রাইমিয়ার সাগর সৈকতের বালি ধুয়ে যাচ্ছে”।

রুশ লেখক লেভ রুবিনস্টেইন লিখেছেন, বালি চুরির এই খবর তাঁকে সোভিয়েত আমলের এক পুরোনো রসিকতা মনে করিয়ে দিয়েছে “ সাহারা মরুভূমিতে যখন সমাজতন্ত্র কায়েম হয়, তখন কি ঘটে? উত্তর: প্রথমে কিছুই ঘটে না, তারপর মরুভূমিতেও বালির ঘাটতি দেখা দেয়।”

চিঠিপত্র: সম্পাদকের উত্তর